Stories

The Exceptional Service of Md. Mezan

February 7, 2019 / Dhaka

At Uber, we try to always do the right thing. Today, we’d like to look back to one of the most exceptional Uber stories from last year – the story of Md. Mezan, an Uber driver who acted with courage even in the face of adversities, and embodied Uber’s core value of doing what is right.

 

Sunday, October 28, 2018. Md. Mezan knew that there would be a nation-wide strike by transportation workers. But he realized that the strike would lead to a lot of people being stranded on the streets as public transportation services would remain closed. And so, with the aim of helping people at their time of need, Mezan set out with his car earlier than usual.

 

The Incident

 

Around 8:00 AM, Mezan got an Intercity trip request. He had already completed two trips that morning. He picked up the riders and headed towards the destination in Narayanganj.

 

Just as Mezan was exiting Dhaka, his car was stopped by some protestors who asked him to roll down his window. When he did, they reached in and smeared used engine oil on his face, accusing him of not standing in solidarity with their cause.

 

Mezan did not wait any further and sped off so that his riders wouldn’t be affected. Once safely away from the protest, the riders, who were shocked by the incident, asked him to stop the car and said, “You can drop us off here if you want, and go home instead.”

 

But Mezan would not drop his riders off midway. He said, “Sir, if I drop you off here, you will be stranded and unable to reach your destination, which is a long way from here.”

 

He cleaned his face with whatever amount of water he had with him, and drove his riders safely to their destination.

 

But the story wasn’t over yet. Mezan wanted to do everything in his capacity to help others on such a difficult day. And hence, Mezan went on to complete a total of 17 trips that day, driving till late at night.

 

Even after he was harassed by miscreants, Mezan acted with courage by taking responsibility of the situation and having a service-oriented attitude to help people. He wanted to ensure safety for his riders, and to provide reliable and safe transportation for them.

 

Md. Mezan’s act of bravery and his dedication towards serving his riders at their time of need inspires all of us at Uber. We gratefully recognise Md. Mezan for his exceptional service.

#MoveForward

 



ফিরে দেখা ২০১৮: মোঃ মিজান এর অতুলনীয় সার্ভিস

 

Uber-এ আমরা সবসময় ঠিক কাজটাই করি। আজ আমরা ফিরে দেখবো গত বছরের এক অসাধারণ ঘটনা –  Uber ড্রাইভার মোঃ মিজান এর গল্প, যিনি বিপদের মুহূর্তেও সাহসের পরিচয় দিয়েছেন এবং সময় উপযোগী  সঠিক কাজটি করে Uber-এর মূল ভাবমূর্তির সাথে একাত্বতার পরিচয় দিয়েছেন।

 

২৮ অক্টোবর, ২০১৮, রবিবার। মোঃ মিজান জানতেন যে দেশব্যাপী পরিবহন ধর্মঘট চলছে পরিবহন শ্রমিকদের আহ্বানে। কিন্তু তিনি বুঝতে পেরেছিলেন যে সাধারণ মানুষ গণপরিবহন  এর অভাবে রাস্তায় দুর্ভোগের শিকার হবেন। তাই এই প্রয়োজনের মুহূর্তে সাধারণ মানুষকে সাহায্য করার মনোভাব থেকেই মিজান সাহেব অন্য দিনের তুলনায় আরো আগেই গাড়ি নিয়ে বেরিয়ে পড়েন।

 

মূল ঘটনা

 

সকাল ৮ টার দিকে মিজান সাহেব একটি Uber ইন্টারসিটি ট্রিপ এর রিকোয়েস্ট পান। এর আগে সকাল থেকে তিনি ২টি রাইড কমপ্লিট করেছিলেন। তিনি যাত্রী কে তার পিকআপ লোকেশন থেকে নিয়ে যাত্রীর গন্তব্য নারায়ণগঞ্জের দিকে রওয়ানা হন।

 

ঠিক ঢাকা থেকে বের হওয়ার সময় কয়েকজন বিক্ষোভকারী তার গাড়ি থামিয়ে তাকে গাড়ির গ্লাস নামাতে বলেন। কথামতো গাড়ির জানালা খুলতেই বিক্ষোভকারীরা তার মুখে ইঞ্জিনের পোড়া তেল ছুড়ে দেন কেননা মিজান সাহেব তাদের দাবির সাথে একাত্বতা প্রকাশ করেন নি।

 

মিজান সাহেব আর অপেক্ষা না করে দ্রুত গাড়ি চালিয়ে সেই অবস্থা থেকে বেরিয়ে আসেন যেন তার যাত্রীদের কোনো ক্ষতি না হয়। যাত্রীরাও এই ঘটনায় ভীষণ বিচলিত হয়ে পড়েন। যাত্রী মিজান সাহেবকে গাড়ি থামাতে অনুরোধ করেন এবং বলেন, “আপনি চাইলে আমাদের এইখানে নামিয়ে বাসায় চলে যেতে পারেন।”

 

কিন্তু মিজান সাহেব তার যাত্রীদের রাস্তায় নামিয়ে দিতে একদম রাজি না। তিনি বলেন, “স্যার, যদি আপনাকে এইখানে নামিয়ে দেই তাহলে আপনি এই মাঝরাস্তায় কোনো গাড়ি পাবেন না এবং আপনার গন্তব্যে পৌঁছাতে পারবেন না, যা এখান থেকে অনেক দূরে।”

 

তিনি পানি দিয়ে তার মুখ থেকে পোড়া তেল পরিষ্কার করে যাত্রীকে নিরাপদে তার গন্তব্যে নামিয়ে দেন।

 

কিন্তু গল্প এইখানেই শেষ নয়। সাধারণ জনগণের জন্য এমন একটি সঙ্কটের দিনে মিজান সাহেব চেয়েছিলেন যাত্রীদের সাহায্যের জন্য তার স্বার্থের সবটুকু করার। তাই সেদিন গভীর রাত পর্যন্ত গাড়ি চালিয়ে তিনি ১৭টি ট্রিপ কমপ্লিট করেন।

 

দুষ্কৃতকারীদের কাছে হেনস্থা হওয়া সত্ত্বেও মিজান সাহেব সাহসের সাথে সেই মুহূর্তে তার যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করেন শুধুমাত্র কাজের প্রতি তার দায়িত্ববোধ থেকে। যাত্রীদের জন্য একটি নিরাপদ ও নির্ভরযোগ্য যাত্রা নিশ্চিত করা ছিল তার জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।

 

মোঃ মিজানের সাহসিকতা এবং কাজের প্রতি তার দায়িত্ববোধ আমাদের সকলকে অনুপ্রাণিত করে। Uber-এ আমরা সকলে তার এই অতুলনীয় সার্ভিস এর জন্য তাকে সাধুবাদ জানাই।